চিত্রঃ সোশ্যাল মিডিয়া থেকে সংগৃহীত

নিখিল কর্মকার, নদীয়াঃ  প্রকাশ্যে দ্বাদশ শ্রেণীর এক ছাত্রীকে অ্যাসিড মারার ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য সৃষ্টি হলো নদীয়ার কৃষ্ণনগরে। ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার সন্ধ্যা আনুমানিক সাতটা নাগাদ কৃষ্ণনগর কোতোয়ালি থানার অন্তর্গত ঘূর্ণি এলাকায়। জানা যায়, এদিন সন্ধ্যায় ঘূর্ণির ঘরামী পাড়ার বাসিন্দা দীপ্তি বিশ্বাস নামের দ্বাদশ শ্রেণীর এক ছাত্রী টিউশনি পড়ে বাড়ি ফেরার পথে ওই এলাকারই বাসিন্দা অচিন্ত্য শিকারি নামের জনৈক এক যুবক তাকে তাড়া করলে ছাত্রীটি আতঙ্কিত হয়ে দৌড়ে গিয়ে স্থানীয় একটি ক্লাবে ঢুকে পড়লে ওই যুবক ক্লাব ঘরের ভেতরে ঢুকে ছাত্রীটিকে জোর পূর্বক মুখে অ্যাসিড ঢেলে দেয়।সেই সময়ে ক্লাবে স্থানীয় কয়েকজন যুবক উপস্থিত ছিল। অ্যাসিড ফোটা ছিটকে তাঁরাও আহত হয়। বিষয়টি জানাজানি হতেই স্থানীয় বাসিন্দারা আক্রান্ত ছাত্রীটি সহ আহত যুবকদের উদ্ধার করে শক্তিনগর জেলা হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে চিকিৎসারত অবস্থায় ছাত্রীটির শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে তাকে কলকাতা নীলরতন সরকার মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল স্থানান্তরিত করা হয়। ঘটনায় আহত বাকি যুবকেরা বর্তমানে শক্তিনগর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

   ঘটনার পর থেকে পলাতক অভিযুক্ত যুবক অচিন্ত্য শিকারি। এই ঘটনায় উত্তেজিত স্থানীয় বাসিন্দারা ধৃত যুবকের বাড়ি ভাঙচুর চালায়। অবিলম্বে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে তার ফাঁসির দাবি করে স্থানীয় বাসিন্দারা। আক্রান্ত ছাত্রীর পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযুক্ত ওই যুবককের খোঁজে তল্লাশি চালানোর পাশাপাশি সম্পূর্ণ ঘটনাটির তদন্ত শুরু করেছে কৃষ্ণনগর কোতোয়ালি থানার পুলিশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here